২০২২ সালের ২৭ মার্চ ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জে একটি ছোট কাঠের নৌকায় বেশ কয়েকজনঅভিবাসী এসে পৌঁছায়। ২৫ থেকে ২৭ মার্চের মধ্যে প্রায়  ২৫০ জন অভিবাসী ক্যানারি পৌঁছান| ছবি: মার্সিডিজ মেনেনডেজ/পিকচার-অ্যালায়েন্স/প্যাসিফিক প্রেস
২০২২ সালের ২৭ মার্চ ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জে একটি ছোট কাঠের নৌকায় বেশ কয়েকজনঅভিবাসী এসে পৌঁছায়। ২৫ থেকে ২৭ মার্চের মধ্যে প্রায় ২৫০ জন অভিবাসী ক্যানারি পৌঁছান| ছবি: মার্সিডিজ মেনেনডেজ/পিকচার-অ্যালায়েন্স/প্যাসিফিক প্রেস

স্পেনের এনজিও কামিনান্দো ফ্রন্তেরাস জানিয়েছে, ২০২২ সালের জানুয়ারি থেকে জুলাইয়ের মধ্যে আটলান্টিক মহাসাগরের বিপজ্জনক পথে স্পেনে যাওয়ার চেষ্টা করতে গিয়ে দৈনিক পাঁচ জন অভিবাসনপ্রত্যাশী (গড়ে) প্রাণ হারিয়েছেন।

বুধবার (২১ জুলাই) স্পেনের এনজিও কামিনান্দো ফ্রন্তেরাস (ওয়াকিং বর্ডারস) এক প্রতিবেদনে জানিয়েছে, চলতি বছরের প্রথম ছয় মাসে সমুদ্রপথে স্পেনে পৌঁছানোর চেষ্টা করে কমপক্ষে ৯৭৮ জন অভিবাসনপ্রত্যাশী মারা গেছে বা নিখোঁজ হয়েছে।

অভিবাসী সহায়তা সংস্থাটি জানিয়েছে, উত্তর-পশ্চিম আফ্রিকার মূল ভূখণ্ড থেকে প্রায় ১০৮ কিলোমিটার দূরে স্পেনের ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জে পৌঁছানোর চেষ্টা করতে গিয়ে ৮০ শতাংশেরও বেশি প্রাণহানি ঘটেছে বা নিখোঁজের ঘটনা ঘটেছে।

২০২১ সালের প্রথম ছয় মাসে দুই হাজার ৮৭ জনের মৃত্যু নিবন্ধিত হয়েছিল। চলতি বছরে প্রাণহানির সংখ্যা অর্ধেকেরও কম। চলতি বছরে রাবাত এবং মাদ্রিদ কূটনৈতিক সম্পর্ক মেরামত হয়েছে। দুই বছরেরও বেশি সময় বন্ধ থাকার পর মরক্কোর সঙ্গে থাকা স্পেনের দুই ছিটমহল সেউটা এবং মেলিলা স্থল সীমান্ত খুলে গেছে চলতি বছরের মে মাসে। 

জাতিসংঘের অভিবাসন বিষয়ক সংস্থা (আইওএম) বলেছে, ২০২২ সালের প্রথমার্ধে মৃত বা নিখোঁজ ব্যক্তিদের সংখ্যা অনেক কমে দাঁড়িয়েছে ৩১২ জনে।

ভূমধ্যসাগরে নজরদারি বেড়েছে 

আটলান্টিক মহাসাগরের রুটটি খুব বিপজ্জনক। শক্তিশালী স্রোতে অতিরিক্ত অভিবাসনপ্রত্যাশীদের নিয়ে নৌকার পারাপার প্রাণের ঝুঁকি বাড়িয়ে তোলে। অভিবাসনপ্রত্যাশীদের চূড়ান্ত গন্তব্য ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জ। অনেক সময় সেখানে যাওয়ার পথে পানীয় জল অপর্যাপ্ত হয়ে পড়ে এবং খাদ্য সরবরাহ কমে যায়। কখনো কখনো এক সপ্তাহেরও বেশি সময় লাগে ।

পশ্চিম সাহারা, মাউরিটানিয়া বা সেনেগাল থেকে উন্নত জীবনের আশায় ইউরোপে পাড়ি দেন অনেক অভিবাসনপ্রত্যাশী।

২০১৯ সালের শেষের দিকে ভূমধ্যসাগরীয় রুটে নিয়ন্ত্রণ বেড়েছে। তারপর থেকে আটলান্টিকের ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জ হয়ে ইউরোপে পৌঁছাতে চাওয়া অভিবাসনপ্রত্যাশীর সংখ্যা বেড়েছে।

স্পেন সরকার বলেছে, ১ জানুয়ারি থেকে 30 এপ্রিলের মধ্যে সমুদ্রপথে মোট ছয় হাজার ৬২৪ জন অভিবাসনপ্রত্যাশী ক্যানারিতে এসেছেন। ২০২১ সালের একই সময়ের তুলনায় যা ৫০ শতাংশ বেশি। স্পেনের স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের তথ্য উদ্ধৃত করে বার্তাসংস্থা এএফপি জানিয়েছে, চলতি বছরের প্রথম ত্রৈমাসিকের তুলনায় দ্বিতীয় ত্রৈমাসিকে সমুদ্রপথে স্পেনে প্রবেশকারী অভিবাসনপ্রত্যাশীর সংখ্যা ৩৫.৭ শতাংশ কমেছে।


আরকেসি/এসিবি (এএফপি)

 

অন্যান্য প্রতিবেদন