(ফাইল ছবি)  হাঙ্গেরি সীমান্তে পরিচালিত অভিযানে নিয়মিত দক্ষিণ এশীয় অভিবাসীদের  আটক করে বুখারেস্ট কর্তৃপক্ষ। ছবি: রোমানিয়া সীমান্ত পুলিশ।
(ফাইল ছবি) হাঙ্গেরি সীমান্তে পরিচালিত অভিযানে নিয়মিত দক্ষিণ এশীয় অভিবাসীদের আটক করে বুখারেস্ট কর্তৃপক্ষ। ছবি: রোমানিয়া সীমান্ত পুলিশ।

হাঙ্গেরির কাছে রোমানিয়ার আরাদ সীমান্ত দুটি আলাদা অভিযানে পণ্যবাহী ট্রাকের ভিতরে লুকিয়ে থাকা ৪৬ জন অনিয়মিত অভিবাসীকে আটক করেছে পুলিশ। এদের মধ্যে ৩৮ জন সিরীয় এবং বাকিরা বাংলাদেশ, নেপাল ও শ্রীলঙ্কার নাগরিক।

রোমানিয়া বর্ডার পুলিশ, ৭ নভেম্বর একটি সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানায়, “ডিটারজেন্ট এবং ধাতব বার বোঝাই দুটি ট্রাকে লুকিয়ে অবৈধভাবে হাঙ্গেরিতে প্রবেশের সময় ৪৬ জনকে আটক করা হয়েছে।”

পুলিশ জানিয়েছে, অভিবাসী বহনকারী প্রথম ট্রাকটি আটক করা হয় ন্যাডলাক দুই সীমান্তে। গাড়িটির চালক তুরস্কের নাগরিক। নথি অনুসারে, তিনি তুরস্ক-পোল্যান্ড রুটে ধাতব বার পরিবহন করছিলেন।

আরও পড়ুন>>বৈধ পথে এসেও রোমানিয়ায় প্রতারণার শিকার বাংলাদেশি শ্রমিকেরা (প্রথম পর্ব)

আরাদ এলাকার সীমান্ত পুলিশ জানিয়েছে, গাড়িটির পণ্য ও অন্যান্য নথি যাচাইয়ের সময় পুলিশের সন্দেহ হলে ট্রাকের ভিতর খুলে দেখার সিদ্ধান্ত নেয়া হয়। পরবর্তীতে গাড়ির ভেতর থেকে ৩৮ জন সিরীয় অভিবাসীকে আটক করা হয়। তারা সবাই অনিয়মিত অবস্থায় সীমান্ত পাড়ি দিচ্ছিলেন। তাদের লক্ষ্য ছিল পশ্চিম ইউরোপের দেশগুলোতে প্রবেশ করা। 

একই সময়ে, ভারসান্দ নামক আরেক সীমান্ত পয়েন্টে ডিটারজেন্ট পরিবহন করা একটি গাড়ির ভেতর লুকিয়ে থাকা আট বিদেশি নাগরিককে খুঁজে পায় সীমান্ত পুলিশের দল। একজন রোমানীয় নাগরিক এই গাড়িটি চালাচ্ছিলেন। 

পড়ুন>>বৈধ পথে এসেও রোমানিয়ায় প্রতারণার শিকার বাংলাদেশিরা (দ্বিতীয় পর্ব)

আট অভিবাসীকে আটকের পর পুলিশ জানতে পারে তারা শ্রীলঙ্কা, বাংলাদেশ এবং নেপালের নাগরিক। যাদের বয়স ২২ থেকে ৪১ বছরের মধ্যে। তারা সবাই শেঙ্গেন জোনে প্রবেশ করে ইউরোপের স্বচ্ছল দেশগুলোতে প্রবেশের চেষ্টা করছিলেন। 

বেশ কিছু বছর ধরে ইউরোপের ভিসামুক্ত জোন শেঙ্গেনে আসতে চাইছে রোমানিয়া। এই জোনে প্রবেশের অন্যতম শর্ত, অনিয়মিত অভিবাসনের বিরুদ্ধে কার্যকর উদ্যোগ গ্রহণ করা এবং অভিযান বাড়ানো। 

ইউরোপের পুলিশ সংস্থা ইউরোপোল ইতিমধ্যে রোমানিয়ার সীমান্ত এলাকাগুলোতে বেশ কিছু অভিযান পরিচালনা করছে।

আরও পড়ুন>>শেঙ্গেন সীমান্তে আবারও গ্রেপ্তার বাংলাদেশিসহ ৮২ অভিবাসী

২০২২ সালের শুরু থেকেই যেসব অভিবাসীরা রোমানিয়াকে ব্যবহার করে হাঙ্গেরিতে প্রবেশ করতে চাইছে এমন ব্যক্তিদের গণহারে গ্রেপ্তার করছে বুখারেস্ট। চলতি বছরের প্রথম আট মাসে সীমান্তে ১০ হাজার ৯১৬ জনকে অনিয়মিত অবস্থায় আটকের তথ্য দিয়েছে রোমানিয়া সীমান্ত পুলিশ৷ এর মধ্যে তিন হাজার ৮৮৮ জন অভিবাসী অনিয়মিত উপায়ে রোমানিয়া ছেড়ে শেঙ্গেন অঞ্চলে প্রবেশ করেছেন৷ এছাড়া সাত হাজার ২৮ জন বেআইনিভাবে রোমানিয়া ভূখণ্ডে প্রবেশের চেষ্টা করেন৷


এমএইউ/আরকেসি


 

অন্যান্য প্রতিবেদন