অবৈধ অভিবাসন

পশ্চিম আফ্রিকার বিভিন্ন দেশের অভিবাসনপ্রত্যাশীরা নাইজারের এই পথ ধরে লিবিয়া পৌঁছানোর চেষ্টা করে থাকেন৷ ফাইল ফটো: পাপে সিরে কেইন/এমএসএফ
২০২২ সালের ২৭ জুন সান আন্তোনিওর একটি ট্রেলারে বেশ কয়েকটি মৃতদেহ মিলেছে৷ আরো কয়েকজনকে অসুস্থতার কারণে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়৷ ছবি: এরিক গে/এপি
গ্রিসের সামোসে আশ্রয়প্রার্থীদের জন্য শিবিরটি বন্ধ হয়ে গিয়েছে৷  ২০২২ সালের ১৬ জুনের ছবি: নাবিলা করিমি আলেকজাই/ইনফোমাইগ্রেন্টস
সাগর পাড়ি দিয়ে প্রতিবছর বিপুল সংখ্যক অভিবাসনপ্রত্যাশী গ্রিসে প্রবেশ করেন৷ ফাইল ফটো:  হেলেনিক কোস্টগার্ড/এপি/পিকচার অ্যালায়েন্স
ফ্রান্স-ইটালি সীমান্তের রোয়া উপত্যকার নিকটে সোসপেল চেকপয়েন্টে পুলিশের নিয়মিত টহল দল। ছবি: মেহেদি শেবিল/ইনফোমাইগ্রেন্টস
এভ্রোস অঞ্চলে গ্রিক তুর্কি-সীমান্ত। ছবি: রয়টার্স
২০১৫ সালে ক্রোয়েশিয়া সীমান্তে দুইশ কিলোমিটার দীর্ঘ বেড়া স্থাপন করে মধ্য ইউরোপের দেশ স্লোভেনিয়া৷ ফাইল ফটো: ডানা আলবোজ/ইনফোমাইগ্রেন্টস
স্পেনের ক্যানারি দ্বীপপুঞ্জে অভিবাসীদের উদ্ধার করে রক্ষী বাহিনী৷ ছবি: পিকচার অ্যালায়েন্স/প্যাসিফিক প্রেস
ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে হাজার হাজার অভিসনপ্রত্যাশী প্রতিবছর দক্ষিণ ইউরোপের এই পাঁচটি দেশে আশ্রয়ের আশায় হাজির হন৷ ফাইল ফটো: ইউয়ান মেডিনা/রয়টার্স
ভূমধ্যসাগর পাড়ি দিয়ে হাজার হাজার অভিসনপ্রত্যাশী প্রতিবছর দক্ষিণ ইউরোপের এই পাঁচটি দেশে আশ্রয়ের আশায় হাজির হন৷ ফাইল ফটো: এসওএস মেডিট্রেনি/ওশান ভাইকিং
ইউরোপীয় ইউনিয়নের পুলিশ সংস্থা হিসেবে পরিচিত (ইউরোপোল)। ছবি: ইমাগো
গ্রিসের সামোস দ্বীপে শরণার্থীরা৷ ফাইল ছবি: ইপিএ/মিশায়েল ভারনিয়াস